রবিবার, ৮ ডিসেম্বর ২০১৯ | ২৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৬

Select your Top Menu from wp menus

৯ বছর বয়সেই গ্র্যাজুয়েট!

এসবিনিউজ ডেস্ক: আর একমাস পরে অর্থাৎ ডিসেম্বর মাসে বিশ্বে সবচেয়ে কম বয়সে স্নাতক ডিগ্রির অধিকারী হতে যাচ্ছে আমস্টারডামের নয় বছরের বালক লুরেন্ট সিমন্স। এইন্ডহোভেন ইউনির্ভাসিটি অব টেকনোলজি থেকে তড়িৎ প্রকৌশলে স্নাতক ডিগ্রি অর্জন করতে যাচ্ছে ছোট্ট এই বালক।

বর্তমানে সবচেয়ে কম বয়সে স্নাতক ডিগ্রির রেকর্ডের মালিক যুক্তরাষ্ট্রের মাইকেল কেভিন কার্নি। যিনি ১০ বছর বয়সে ইউনির্ভাসিটি অব আলাবামা থেকে স্নাতক ডিগ্রি লাভ করেন। এবার অনন্য এই রেকর্ডের অধিকারী হতে যাচ্ছে ৯ বছর বয়সী লুরেন্ট সিমন্স।

শিশু বয়স থেকেই প্রতিভাবান লুরেন্টের আইকিউ স্কোর ১৪৫-এর বেশি। ৮ বছর বয়সে ১৮ মাসের মাধ্যমিক স্কুল সম্পন্নকারী লুরেন্টের ইচ্ছা ভবিষ্যতে নভোচারী অথবা চিকিৎসক হওয়ার। দ্য টেলিগ্রাফকে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে লুরেন্ট স্নাতকোত্তর ডিগ্রি অর্জনের জন্য ভালো আবহাওয়ার কারণে যুক্তরাষ্ট্রের ক্যালিফোর্নিয়ায় যাওয়ার আগ্রহ প্রকাশ করেছেন।

যদিও তার বাবা ৩৭ বছরের দন্ত চিকিৎসক আলেক্সান্ডার সিমন্স যুক্তরাজ্যে পড়ালেখার বিষয়টিও বিবেচনা করা হচ্ছে বলে জানিয়েছেন। তিনি বলেন, ‘অক্সফোর্ড বা কেমব্রিজ অনেক নামকরা প্রতিষ্ঠান এবং আমাদের জন্য সেগুলো অধিক সুবিধাজনকও হবে।’

লুরেন্টের বর্তমান শিক্ষক অধ্যাপক পিটার বাল্টাস দাবি করেছেন, তার দীর্ঘ ক্যারিয়ারে দেখা সবচেয়ে বুদ্ধিমান শিক্ষার্থীর চেয়ে লুরেন্ট কমপক্ষে তিন গুণ বেশি বুদ্ধিমান। লেখাপড়ার বাইরে লুরেন্ট অনলাইনে গেম খেলতে এবং বন্ধুদের সঙ্গে সময় কাটাতে পছন্দ করে। মাঝে মাঝে নেটফ্লিক্সও দেখে। প্রখর মেধার অধিকারী লুরেন্ট ভবিষ্যতে হৃদরোগের চিকিৎসক হিসেবে প্রতিষ্ঠিত হতে বেশি আগ্রহী, কারণ তার দাদা-দাদি উভয়েরই হৃদরোগের সমস্যা রয়েছে।

Related posts