বৃহস্পতিবার, ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২১ | ১২ ফাল্গুন ১৪২৭

Select your Top Menu from wp menus

সাংবাদিকদের ওপর হামলা বাড়ছে যুক্তরাষ্ট্রে

এসবিনিউজ ডেস্ক: যুক্তরাষ্ট্রে সাংবাদিকদের ওপর হামলার ঘটনা বাড়ছে। বিশেষ করে বিক্ষোভের সময় অনেক সাংবাদিকই হামলার শিকার হন। গত ৬ জানুয়ারিও ক্যাপিটল হিলে হামলার সময় কয়েকজন সাংবাদিক আক্রান্তের শিকার হন। এমনকি তাদের প্রয়োজনীয় যন্ত্রপাতিও নষ্ট করে ফেলা হয়। খবর ওয়াশিংটন পোস্ট ও ভয়েস অব আমেরিকার।
৬ জানুয়ারি কংগ্রেস ভবন ক্যাপিটল হিলে কংগ্রেসের যৌথ অধিবেশন চলাকালে হামলা চালায় প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের সমর্থকরা। এ সময় ছবি তোলার চেষ্টা করেন এপির ফটোগ্রাফার জন মিনচিলো। সঙ্গে সঙ্গেই বিক্ষোভকারীরা তার ওপর হামলা চালায়। কয়েকজন মিলে তাকে মাটিতে ফেলে দেয় এবং তার ক্যামেরা কেড়ে নেয়। এরপর তাকে ছবি না তোলার হুমকি দেওয়া হয়। এমনিক হত্যা করা হবে বলেও হুমকি দেয় বিক্ষোভকারীরা। কেউ কেউ মিনচিলোকে ‘অ্যান্টিফা’ বলেও উল্লেখ করেন। কিছু বিক্ষোভকারী বলেন, ‘মিডিয়াকে হত্যা করো’। তারা সাংবাদিককে সেখান থেকে বের করে দেন।
ইউএস প্রেস ফ্রিডম ট্র্যাকার জানিয়েছে, ৬ জানুয়ারি ৯ জন সাংবাদিক হামলার শিকার, পাঁচজনকে গ্রেপ্তার এবং কয়েকজনকে আটকের ঘটনাও ঘটেছে। এছাড়া অনেক সাংবাদিকের যন্ত্রপাতি কেড়ে নেওয়া বা ধ্বংস করার ঘটনা ঘটেছে। জানা যায়, গত বছরের ২৬ মে থেকে পরবর্তী এক মাসের মধ্যে প্রেসের স্বাধীনতা লংঘনের ৪০০ টি ঘটনা ঘটেছে। ঐ সময় কৃষ্ণাঙ্গ জর্জ ফ্লয়েড হত্যার ঘটনায় বিক্ষোভ চলছিল। কমিটি টু প্রটেক্ট জার্নালিস্ট (সিপিজে) এই তথ্য জানিয়েছে। ইউএস প্রেস ফ্রিডম ট্র্যাকার জানায়, ২০২০ সালে ৩২৫ সাংবাদিকের ওপর হামলা এবং ১২৩ জনকে গ্রেপ্তারের ঘটনা ঘটে। আরো ২০০ ঘটনা ঘটেছে যা সাংবাদিকদের স্বাধীনতার ওপর হস্তক্ষেপ বলে মনে করা হয়। ডোনাল্ড ট্রাম্প ক্ষমতায় আসার পর থেকে সাংবাদিকদের ওপর তিনি আক্রমনাত্মক ভূমিকা পালন করেছেন। তিনি জনপ্রিয় মিডিয়াকেও ‘ফেক মিডিয়া’ বলে উল্লেখ করেছেন।

Related posts