শনিবার, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২১ | ৩ আশ্বিন ১৪২৮

Select your Top Menu from wp menus

মমতার নেই গাড়ি, নেন না বেতন

এসবিনিউজ ডেস্ক: দীর্ঘ ১০ বছর ধরে ভারতের পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীর দায়িত্ব পালন করে আসছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। কিন্তু এখন পর্যন্ত রাজ্য সরকারের কাছ থেকে তিনি এক টাকাও বেতন নেননি। তার না আছে গাড়ি, না আছে কোনো স্থাবর সম্পত্তি। আসন্ন বিধানসভা নির্বাচনকে সামনে রেখে মনোনয়নপত্র জমা দেওয়ার পরই প্রকাশ্যে এমন অবাক করা তথ্য।
এবারের নির্বাচনে কলকাতার ভবানীপুর আসন ছেড়ে এবার নন্দীগ্রাম থেকে নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন তৃণমূল কংগ্রেসের শীর্ষ নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এ লক্ষ্যে গত বুধবার রাজ্যের হলদিয়ার নির্বাচন দফতরে মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন তিনি।
তৃণমূল কংগ্রেসের এই শীর্ষ নেত্রীর হলফনামার তথ্য মোতাবেক, ২০১৯-২০২০ অর্থবর্ষে তার আয় ছিল ১০ লাখ ৩৪ হাজার ৩৭০ টাকা। ২০১৮-১৯ আর্থিক বছরে বার্ষিক আয় ছিল ২০ লাখ ৭১ হাজার ১০ টাকা। তারও আগের তিনটি আর্থিক বছরের আয়ের বিবরণও রয়েছে ওই হলফনামায়। বিবরণ বলছে, মমতার সর্বোচ্চ আয় ২০১৮-১৯ অর্থবছরেই। মনোনয়ন পেশের সময় পর্যন্ত মমতার হাতে নগদ রয়েছে ৬৯ হাজার ২৫৫ টাকা।
এছাড়া, প্রকাশ্যে এসেছে পশ্চিমবঙ্গের এই মুখ্যমন্ত্রীর অস্থাবর সম্পত্তির পরিমাণও। কয়েকটি সেভিংস অ্যাকাউন্ট এবং ন্যাশনাল সেভিং সার্টিফিকেট মিলিয়ে মমতার মোট অস্থাবর সম্পত্তি ১৬ লাখ ৭২ হাজার ৩৫২ টাকা ৭১ পয়সা। যা গত বিধানসভা নির্বাচনে পেশ করা সম্পদের প্রায় অর্ধেক। ২০১৬ সালের বিধানসভা নির্বাচনে নিজের সম্পদের পরিমাণ ৩০ লাখ ৭৫ হাজার টাকা বলে জানিয়েছিলেন মমতা। অর্থাৎ তৃণমূলের এই শীর্ষ নেত্রীর সম্পদ কমেছে প্রায় ৪৫ দশমিক ১ শতাংশ।

Related posts