বৃহস্পতিবার, ২৩ জানুয়ারি ২০২০ | ৯ মাঘ ১৪২৬

Select your Top Menu from wp menus

পদ্মাসেতুতে বসানো হল ২১ তম স্প্যান

এসবিনিউজ ডেস্ক: পদ্মা সেতুর ২১তম স্প্যান স্থাপন হয়েছে। মঙ্গলবার বিকাল ৩টা ৩মিনিটের সময় এই স্প্যান বসানো সম্পন্ন হয়। এর ফলে পদ্মাসেতু অর্ধেকের বেশী ৩১৫০ মিটার দৃশ্যমান হলো।
বছরের প্রথম স্প্যান খুঁটিতে বসানোর মধ্য দিয়ে পদ্মা সেতু আরেক ধাপ এগিয়ে গেলে। ৬.১৫ মিটার দীর্ঘ এই মূল সেতুতে আর ২০টি স্প্যান বসানো বাকী। চলতি মাসে সেতুর আরও দু’টি স্প্যান উঠার কথা রয়েছে।
সেতু বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলী দেওয়ান মো. আব্দুল কাদের জানিয়েছেন, প্রতি মাসে সেতুর তিনটি করে স্প্যান বসবে। এতে আগামী জুলাই মাসেই সব অর্থ্যাৎ ৪১টি স্প্যান বসানো সম্ভব হবে।
স্থায়ীভাবে সেতুতে ২১ স্প্যান বসেছে। তবে অস্থায়ী ভাবে আরও একটি অর্থ্যাৎ সেতুতে এখন ২২টি স্প্যান দৃশ্যমান। ‘৫এফ’ নম্বরের স্প্যানটি এখন অস্থায়ীভাবে সেতুর ১২ ও ১৩ নম্বর খুঁটিতে রাখা আছে। এটি সরিয়ে নেয়া হবে ৩০ ও ৩১ নম্বর খুঁটিতে। রেলওয়ে এবং রোডওয়ে স্লাব বসানোর সুবিধার্থে এটি সেখানে যথাস্থানে বসানো হয়নি। তবে শিঘ্রই এটিও ৩০ ও ৩১ নম্বর খুঁটিতে বসানো হবে।
আবহাওয়া জনিত কারণে কিছুটা বিলম্ব হলেও এরই মধ্যে সব প্রক্রিয়া সম্পন্ন করে জাজিরা প্রান্তে সেতুর ৩২ ও ৩৩ নম্বর খুঁটির ওপর ‘৬বি’ নম্বর স্প্যানটি পিলারের উপর বসানো হয়।
মঙ্গলবার সকাল ৯টা ২০ মিনিটের দিকে মুন্সীগঞ্জের মাওয়া কুমারভোগ কন্সট্রাকশন ইয়ার্ড থেকে স্প্যানটিকে নিয়ে যায় ‘তিয়ান ই’ ভাসমান ক্রেন। নির্ধারিত পিলারের কাছে পৌঁছায় সকাল ১১টার দিকে। ২০তম স্প্যান বসানোর ১৪ দিনের মাথায় বসেছে ২১তম স্প্যানটি।
দ্বিতল সেতুটি কংক্রিট ও স্টীল দিয়ে নির্মাণ করা হচ্ছে। এই সেতুর দু’প্রান্তে আরও প্রায় তিন কিলোমিটার সংযোগ সেতু রয়েছে। তাই সেতুটি দীর্ঘ প্রায় ৯কিলোমিটার। সেই সংযোগ সেতুর কাজের অগ্রগতিও সন্তোসজনক। চীনের ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান চায়না রেলওয়ে মেজর ব্রিজ ইঞ্জিনিয়ারিং গ্রুপ কোম্পানি লিমিটেড মূল সেতু নির্মাণের কাজ করছে।

Related posts