রবিবার, ৯ আগস্ট ২০২০ | ২৪ শ্রাবণ ১৪২৭

Select your Top Menu from wp menus

খুলনা-কলকাতা রুটে ফের যাত্রীবাহী ট্রেন চলাচল শুরু

স্টাফ রিপোর্টার: দীর্ঘ ৫২ বছরের প্রতীক্ষার অবসান ঘটিয়ে অবশেষে খুলনাকলকাতা রুটে বাণিজ্যিকভাবে ফের শুরু হল যাত্রীবাহী ট্রেন চলাচল এরফলে বাংলাদেশভারত বন্ধন আরও সুদৃঢ় হল বৃহস্পতিবার (১৬ নভেম্বর) দুপুর ১টা ৪৫মিনিটে ২৫৪জন যাত্রী নিয়ে খুলনা স্টেশন থেকে ছেড়ে যায়বন্ধন এক্সপ্রেস এরআগে কলকাতা থেকে ৫৩জন যাত্রী নিয়ে দুপুর ১২টা ২৫ মিনিটে খুলনায় পৌঁছায় বন্ধন এক্সপ্রেস নিয়মিত ট্রেন চলাচল শুরু হওয়ায় খুলনাঞ্চলের মানুষের দীর্ঘদিনের স্বপ্ন পূরণ হল বন্ধন এক্সপ্রেসে প্রায় ৫ঘণ্টায় দুই বাংলার মানুষ নিজ নিজ গন্তব্যে পৌঁছাবেন ভারতীয় হাইকমিশনার হর্ষবর্ধন শ্রিংলা খুলনা স্টেশন থেকে এই ট্রেনের যাত্রী হয়েছেন তিনি বেনাপোল পর্যন্ত যাবেন

যাত্রার শুরুতে হর্ষবর্ধন শ্রিংলা বলেন, ট্রেন চালুর মধ্য দিয়ে দুই দেশের মানুষের মধ্যে যোগাযোগ সম্পর্ক আরও সুদৃঢ় হবে সম্প্রসারণ ঘটবে বাণিজ্যের রোগী বৃদ্ধদের যাতায়াতে অনেক সুবিধা হবে সরাসরি ট্রেন চালুর ফলে যাত্রীদের দুর্ভোগ কমবে শ্রিংলা জানান, বছর শেষে খুলনাতে সহকারী ভারতীয় দূতাবাস খোলা হবে

অর্ধশতাব্দী পর যাত্রার সাথী হতে পেরে যাত্রীরা খুবই খুশি তারা বলেন, দীর্ঘ দিন ধরে আশায় ছিলাম কবে খুলনাকলকাতা ট্রেন চালু হবে অবশেষে স্বপ্ন পূরণ হলো ইতিহাসের সাথী হতে পেরে ভীষণ ভালো লাগছে

উল্লেখ্য, বৃটিশ আমলে শুরু হয়ে ১৯৬৫ সালে ভারতপাকিস্তান যুদ্ধের সময় পর্যন্ত খুলনা কলকাতা রুটে নিয়মিত যাত্রীবাহী ট্রেন চলাচল করতো যুদ্ধের পর বন্ধ হয়ে যায় এই রেল যোগাযোগ

খুলনা স্টেশন মাস্টার মানিক চন্দ্র সরকার বলেন, খুলনাকলকাতা ১৭৫ কিলোমিটার রেলপথের যাত্রী ভাড়া নির্ধারণ করা হয়েছে এসি সিট (১৫ ডলার) হাজার ৩১১ টাকা এর সঙ্গে ভ্যাট ১৮৯ টাকা এবং ট্রাভেল ট্যাক্স ৫শটাকাসহ মোট ভাড়া হাজার টাকা আর এসি চেয়ার কোচের ভাড়া ধরা হয়েছে (১০ ডলার) ৮৭৪ টাকা সঙ্গে  যোগ হবে ভ্যাট ১২৬ টাকা ট্রাভেল ট্যাক্স ৫শটাকা সর্বমোট ১৫শটাকা দুদেশের স্থলপথের যাত্রীদের কাছ থেকে বাংলাদেশ ৫০০ টাকা ট্রাভেল ট্যাক্স নিলেও ভারত কোনো ট্রাভেল ট্যাক্স আরোপ করেনি ভারতীয় নাগরিকদেরও বাংলাদেশ থেকে ফেরার পথে ট্রাভেল ট্যাক্স দিতে হয়

উল্লখ্য,এরআগে গত নভেম্বর ঢাকা, দিল্লি এবং কলকাতা থেকে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে যাত্রার শুভসূচনা করেন বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা, ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়

প্রতি বৃহস্পতিবার ট্রেনটি বাংলাদেশ সময় সকাল ৭টা ৪০ মিনিটে (ভারতীয় সময় সকাল ৭টা ১০ মিনিট) যাত্রী নিয়ে কলকাতার চিৎপুর স্টেশন থেকে ছেড়ে আসবে বেনাপোল হয়ে খুলনা পৌঁছাবে দুপুর ১২টা ৩০ মিনিটে ঘন্টা বিরতির পর খুলনা থেকে যাত্রী নিয়ে দুপুর ১টা ৩০ মিনিটে রওয়ানা হয়ে কলকাতা স্টেশনে পৌঁছাবে বাংলাদেশ সময় সন্ধ্যা ৬টা ৪০ মিনিটে (ভারতীয় সময় সন্ধ্যা ৬টা ১০ মিনিট)

Related posts