বুধবার, ৩ জুন ২০২০ | ১৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭

Select your Top Menu from wp menus

‘আবার বিয়ে করব এমন পরিকল্পনা ছিল না’

বিনোদন ডেস্ক:  ‘আবার বিয়ে করব এমন পরিকল্পনা ছিল না। কিন্তু সৃজিতের সঙ্গে মিশে অনেক ভাবনার পরিবর্তন হয়। এক পর্যায়ে মনে হয়েছে সৃজিত আমার প্রতি খুব সিনসিয়ার। আমার মনে হয়েছে সৃজিত একজন ভালো মানুষ, তার সঙ্গে থাকা যায়।’—‘আড্ডা উইথ সোহানা সাবা’ নামে ফেসবুক লাইভ অনুষ্ঠানে অতিথি হিসেবে উপস্থিতি হয়ে কথাগুলো বলেন মডেল-অভিনেত্রী রাফিয়াথ রশীদ মিথিলা।

কবে প্রথম মনে হলো সৃজিতকে জীবনসঙ্গী হিসেবে নেওয়া যায় বা কবে মনে হলো এই মানুষটাকে সারাজীবন সহ্য করা যায়? এমন এক প্রশ্নের জবাবে মিথিলা বলেন—‘এই মানুষটাকে সহ্য করা যায় কিনা তা এখনো বুঝার চেষ্টা করছি। তবে সেরকম কোনো দিনক্ষণ নেই। কিন্তু বিয়ের আগে আমরা অনেক সময় কথা বলেছি। এক পর্যায়ে মনে হয় সৃজিতের সঙ্গে দীর্ঘ সময় একসঙ্গে কাটানো যায়। আর বিয়ের বিষয়ে সৃজিতের আগ্রহ বেশি ছিল। তার মানে এই না যে আমার আগ্রহ ছিল না।’

সৃজিত মুখার্জি ব্যক্তিগত জীবনে ক্রিকেট খেলা খুব পছন্দ করেন। স্বাভাবিকভাবে কোনো বিষয়ে কথা বলতে গেলেও ক্রিকেটের উদাহরণ টেনে থাকেন। এ আড্ডায়ও কথা প্রসঙ্গে ক্রিকেট খেলার উদাহরণ টানেন সৃজিত। ব্যক্তিগত জীবনে কথা বলার সময়ও সৃজিত এভাবে ক্রিকেট খেলার উদাহরণ নিয়ে আসেন কিনা তা মিথিলার কাছে জানতে চাওয়া হয়। এ প্রসঙ্গে মিথিলা বলেন—‘সৃজিত ক্রিকেট খুব ভালোবাসে। আর সৃজিতকে আস্তে আস্তে চিনতে শুরু করেছি, জানতে শুরু করেছি। সিনেমা নির্মাণে না আসলে ও ক্রিকেট জার্নালিজমে যেত। ক্রিকেটের প্রতি ওর আলাদা একটা ভালো লাগা রয়েছে। আমারো ক্রিকেট খেলা খুব ভালো লাগে, তবে অতটা প্যাশনেট ক্রিকেটপ্রেমী না। আর ক্রিকেট নিয়ে এখন আমি কথাই বলতে চাই না। কারণ ভারত-বাংলাদেশের খেলা হলে তো একটা গৃহযুদ্ধই হয়।

ভারতীয় বাংলা সিনেমার গুণী নির্মাতা সৃজিত মুখার্জি। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে রাফিয়াথ রশীদ মিথিলার সঙ্গে পরিচয় হয় তার। এরপর মনের লেনা-দেনা। এ জুটির সম্পর্ক নিয়ে জলঘোলা কম হয়নি। সব জল্পনার অবসান ঘটিয়ে গত ৬ ডিসেম্বর রেজিস্ট্রি বিয়ে করেন তারা। কলকাতায় সৃজিতের ফ্ল্যাটে তাদের বিয়ের আনুষ্ঠানিকতা সম্পন্ন হয়। বিয়েতে সৃজিত-মিথিলার পরিবারের ঘনিষ্ঠজনরা উপস্থিত ছিলেন। তারপর গত ২৯ ফেব্রুয়ারি কলকাতায় বিবাহত্তোর সংবর্ধনার আয়োজন করেন সৃজিত। দুজনেরই এটি দ্বিতীয় বিয়ে। করোনার এই সংকটকালে সৃজিত কলকাতায় আর মিথিলা বাংলাদেশে রয়েছেন।

Related posts