শুক্রবার, ২৭ জানুয়ারি ২০২৩ ❙ ১৩ মাঘ ১৪২৯

অবশেষে যাত্রা শুরু খুলনা কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের

স্টাফ রিপোর্টার: অবশেষে খুলনার মানুষের অনেক দিনের স্বপ্ন পূরণ হলো। প্রশাসনিক কার্যক্রম উদ্বোধনের মধ্য দিয়ে যাত্রা শুরু হলো খুলনা কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের। এটি দেশের পঞ্চম কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়। আগামী ১৭ মার্চ জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মদিনে খুলনা কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের একাডেমিক কার্যক্রম শুরু করার পরিকল্পনা রয়েছে বলে জানান বিশ্ববিদ্যালয়ের ভাইস চ্যান্সেলর (ভিসি) প্রফেসর ড. মো. শহীদুর রহমান খান। এ নিয়ে খুলনায় তিনটি পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয় হলো। এর আগেই খুলনা বিশ্ববিদ্যালয় ও খুলনা প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের যাত্রা শুরু হয়েছে।
কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি প্রফেসর ড. মো. শহীদুর রহমান খান বলেন, একাডেমিক কার্যক্রম শুরুর জন্য সার্বিক প্রস্তুতি নেয়া হচ্ছে। ইতোমধ্যে ৭টি অনুষদের অধীন ৫১টি বিভাগ খোলার জন্য বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরী কমিশনে (ইউজিসি) প্রস্তাব পাঠানো হয়েছে। বুধবার ইউজিসি’র একটি প্রতিনিধি দল খুলনায় আসবেন।
মহানগরীর সোনাডাঙ্গা আবাসিক এলাকার প্রথম প্রকল্পের ১২নম্বর রোডের একটি বাড়িতে এ বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনিক কার্যক্রমের যাত্রা শুরু হয়। মঙ্গলবার (২৯জানুয়ারি) দুপুরে প্রশাসনিক কার্যক্রমের উদ্বোধন করেন খুলনা সিটি কর্পোরেশনের মেয়র তালুকদার আব্দুল খালেক।
উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে সিটি মেয়র তালুকদার আব্দুল খালেক বলেন, খুলনার মানুষের দীর্ঘদিনের দাবির প্রেক্ষিতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার প্রতিশ্রুত কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় চালু হতে যাচ্ছে। যা খুলনার শিক্ষাক্ষেত্রে ব্যাপক অবদান রাখবে। তিনি এ বিশ্ববিদ্যালয়কে রাজনীতিমুক্ত রাখার আহবান জানান।
উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে উপস্থিত খুলনা জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ হেলাল হোসেন জানান, কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের জন্য নগরীর দৌলতপুরে ১০৮ একর জমি অধিগ্রহণের জন্য চেষ্টা করা হচ্ছে।
উল্লেখ্য, ২০১১ সালের ৫ মার্চ খুলনার খালিশপুরে এক জনসভায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা খুলনায় একটি কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় স্থাপনের প্রতিশ্রুতি দেন। এরপর নগরীর দৌলতপুরের কৃষি সম্প্রসারণ প্রশিক্ষণ ইনস্টিটিউটের অব্যবহৃত ৫০ একর জমি এবং পাশের ব্যক্তি মালিকানাধীন ১২ একর জমি নিয়ে এই বিশ্ববিদ্যালয় গড়ে তোলার প্রাথমিক পরিকল্পনা করা হয়। ২০১৫ সালের ৫ জুলাই জাতীয় সংসদে ‘খুলনা কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় বিল-২০১৫’ পাস হয়। ২০১৮ সালের সেপ্টেম্বর মাসে বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় (বাকৃবি) ময়মনসিংহ ভেটেরিনারি অনুষদের মাইক্রোবায়োলজি ও হাইজিন বিভাগের প্রফেসর ড. শহীদুর রহমান খানকে খুলনা কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের ভাইস চ্যান্সেলর হিসেবে নিয়োগ দেয়া হয়।

Related posts