বুধবার, ১৯ জুন ২০১৯ ♦ ৫ আষাঢ় ১৪২৬

Select your Top Menu from wp menus

সাংবাদিক শেখ বেলাল উদ্দীনের শাহাদাৎবার্ষিকী পালিত

স্টাফ রিপোর্টার: মেট্রোপলিটন সাংবাদিক ইউনিয়ন খুলনার (এমইউজে) সভাপতি, খুলনা প্রেসক্লাবের সাবেক সহ-সভাপতি, ও দৈনিক সংগ্রামের খুলনা ব্যুরো প্রধান শেখ বেলাল উদ্দীনের ১৪ম শাহাদাৎ বার্ষিকী বিস্তারিত কমসুচীর মধ্যদিয়ে সোমবার (১১ ফেব্রুয়ারি) পালিত হয়। কর্মসুচীর মধ্যে ছিল খুলনা প্রেসক্লাব চত্বরে শহীদ সাংবাদিক স্মৃতি স্তম্ভে পুষ্পমাল্য অর্পণ, কবর জিয়ারত, আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিল।
খুলনা প্রেস ক্লাব নেতৃবৃন্দ শহীদ সাংবাদিক স্মৃতি স্তম্ভে পুস্পমাল্য অর্পণ করেন। পরে এক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। ক্লাবের সভাপতি এস এম হাবিবের সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক মো. সাহেব আলীর পরিচালনায় বক্তব্য দেন কোষাধ্যক্ষ রফিউল ইসলাম টুটুল, মো. আনিসুজ্জামান, হাসান আহমেদ মোল্লা, কৈশিক দে, মাহবুবুল আলম সোহাগ, সাবেক কোষাধ্যক্ষ এইচএম আলাউদ্দিন, মো. রাশিদুল ইসলাম, মোজাম্মেল হক হাওলাদার, সোহরাব হোসেন, আবু তৈয়ব, শেখ শামসুদ্দিন দোহা প্রমুখ।
এমইউজের উদ্যোগে দোয়া মাহফিল ও কবর জিয়ারত কর্মসুচি পালিত হয়। এসব কর্মসূচিতে উপস্থিত ছিলেন, ইউনিয়নের সভাপতি মো. আনিসুজ্জামান, বিএফইউজের সাবেক নির্বাহী সদস্য ও এমইউজের সহ-সভাপতি এহতেশামূল হক শাওন, কোষাধ্যক্ষ আব্দুর রাজ্জাক রানা, সাবেক সহ-সভাপতি আব্দুল খালেক আজীজী, সাবেক সাধারণ সম্পাদক এইচএম আলাউদ্দিন, খুলনা প্রেস ক্লাবের কোষাধ্যক্ষ রফিউল ইসলাম টুটুল, সামসুল আলম খোকন, ফটো সাংবাদিক নেতা নাজমুল হক পাপ্পু, সেলিম গাজী, মুকুল হোসেন, শহীদের ছোট ভাই ও দৈনিক নয়া দিগন্তের স্টাফ রিপোর্টার শেখ শামসুদ্দিন দোহা, কুতুব উদ্দিন রব্বানী প্রমুখ। কবর জিয়ারতকালে মরহুমের রুহের মাগফিরাত কামনা করে বিশেষ দোয়া মোনাজাত করা হয়।
উলে¬খ্য, গত ২০০৫ সালের ৫ ফেব্রুয়ারি খুলনা প্রেসক্লাব চত্বরে সন্ত্রাসীদের বর্বরোচিত বোমা হামলায় শেখ বেলাল উদ্দীন আহত হন। পরে তিনি ঢাকার সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ১১ ফেব্রুয়ারি শাহাদাৎ বরণ করেন।

Related posts