বুধবার, ২১ অগাস্ট ২০১৯ ♦ ৬ ভাদ্র ১৪২৬

Select your Top Menu from wp menus

দাকোপে তালগাছ ও গোলপাতা চাষ সম্প্রসারণে প্রশিক্ষণ

দাকোপ (খুলনা) প্রতিনিধি: উপকূলীয় এলাকায় তালগাছ ও গোলপাতার নার্সারি উত্তোলন এবং চাষ সম্প্রসারণ বিষয়ক প্রশিক্ষণ কর্মশালা বুধবার (১২ জুন) খুলনার দাকোপ উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত হয়। ম্যানগ্রোভ সিলভিকালচার বিভাগ এবং বাংলাদেশ বন গবেষণা ইনস্টিটিউট এই অনুষ্ঠানের আয়োজন করে।

প্রশিক্ষণে সভাপতিত্ব করেন দাকোপ উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মোঃ মুনসুর আলী খান।

সভাপতির বক্তৃতায় চেয়ারম্যান বলেন, উপকূলীয় অঞ্চলে তালগাছ ও গোলপাতা বিশেষ গুরুত্ব বহন করে। এছাড়াও প্রাকৃতিক দুর্যোগ প্রতিরোধে এর গুরুত্ব অপরিসীম। গোলপাতা আমাদের নিত্য প্রয়োজনীয় বস্তু। তালগাছ ও গোলপাতা রোপণে সাধারণ মানুষকে উদ্বুদ্ধ করতে হবে। তালপাতা ও গোলপাতা রোপণ করে আর্থিকভাবে স্বচ্ছলতা আনা সম্ভব। এজন্য তালগাছ ও গোলপাতা ব্যাপক পরিসরে রোপণ করতে হবে। উঁচু, নিচু জায়গাসহ বাড়ির আশপাশে তালগাছ ও গোলপাতা সম্প্রসারণ বাড়াতে হবে।

কর্মশালায় জানানো হয়, প্রতি বছর সুন্দরবন থেকে প্রায় ৯০ হাজার মেট্রিক টন গোলপাতা সংগ্রহ করা হয়। এ থেকে প্রতিবছর প্রায় কোটি টাকার রাজস্ব অর্জিত হয়। দিন দিন গোলপাতার চাহিদা বৃদ্ধি পাচ্ছে। এই এলাকায় লাখ লাখ মানুষ প্রত্যক্ষ ও পরোক্ষভাবে উপকৃত হচ্ছে।

প্রশিক্ষণে দাকোপ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ আবদুল ওয়াদুদ, উপজেলা মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান খাদিজা বেগম এবং খুলনা ম্যানগ্রোভ সিলভিকালচার বিভাগের গবেষণা অফিসার মোঃ আকরামুল ইসলাম প্রমুখ বক্তৃতা করেন। প্রশিক্ষক হিসেবে বক্তৃতা করেন খুলনা ম্যানগ্রোভ সিলভিকালচার বিভাগের বিভাগীয় কর্মকর্তা ড. আ স ম হেলাল সিদ্দীকি।

প্রশিক্ষণে উপজেলার বিভিন্ন সরকারি দপ্তরের কর্মকর্তা, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান, এনজিও প্রতিনিধি, বিভিন্ন ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও সদস্যসহ  স্থানীয় প্রায় ৪০ জন কৃষক অংশগ্রহণ করেন।

Related posts